গতকাল রোববার (২০ ডিসেম্বর) সকাল থেকে লন্ডন, সাউথ ইস্ট ইংল্যান্ড এবং ইস্ট অফ ইংল্যান্ড টিয়ার ৪ অর্থাৎ স্তর ৪ এর নিষেধাজ্ঞার আওতায় এসেছে। এই নিষেধাজ্ঞাগুলো নভেম্বরে দেশটির জারিকৃত লকডাউন এর বিধিনিষেধের সমতুল্য। এই অঞ্চলের বাসিন্দাদের অবশ্যই সীমিত ছাড়সহ বাড়িতে থাকতে হবে।
অত্যাবশকীয় নয় এমন পণ্য সামগ্রী বিক্রিকারী দোকানপাঠ এবং ইনডোর জিমগুলি বন্ধ থাকবে। সবাইকে বাসা থেকে কাজ করার কথা বলা হয়েছে এবং টিয়ার ফোরভুক্ত অঞ্চলগুলোতে প্রবেশ বা সেখান থেকে অন‍্যস্থলে গমণ করা যাবে না। মসজিদসহ উপাসনালয়গুলো খোলা থাকবে।


জরুরী প্রয়োজন না হলে কোনো ধরণের কার্যক্রম চালু থাকবে না, অকারণে বাসার বাইরেও যেতে নিষেধ রয়েছে। সবাইকে বাসায় বসে কাজ করার আহবান জানিয়েছেন বরিস জনসন। তবে নির্মান খাতে জড়িত কর্মীদের জন‍্য কোন নিষেধাজ্ঞা থাকছে না। টিয়ার ৪ ঘোষণাকৃত এলাকাগুলোতে বাইরে থেকে প্রবেশ না করার আহবান জানিয়েছেন বরিস জনসন।


এই কঠোর নিষেধাজ্ঞাগুলো দুই সপ্তাহের জন্য ঘোষণা করা হয়েছে। আগামী ৩০শে ডিসেম্বর এটি আবারো পর্যালোচনা করে দেখা হবে। তবে এর আগে টিয়ার ৪ লকডাউন চলাকালীন সময়ে সবার জন্য স্টে হোম নির্দেশ জারি থাকবে। নাগরিকদের ভ্রমণ না করতে বলেছেন। অন্যান্য এলাকার ক্ষেত্রেও স্থানীয় পর্যায় ছাড়া ভ্রমণ না করার এবং জরুরি কাজ না থাকলে বিদেশ সফর না করার আহবানও জানিয়েছেন তিনি।
বড়দিনে বাড়ির বাহিরে কোথাও উৎসব বা সমাবেশ করা যাবেনা, তবে পারিবারিকভাবে দিনটি উৎযাপন করার কথা বলেছেন বরিস জনসন। এ সুযোগ থাকছে না নববর্ষের জন্যও। আগামী থার্টি ফাস্ট নাইটেও উল্লেখিত কঠোর নিয়ম জারি থাকবে।

বরিস জনসন বলেন, আমি জানি মানুষ বড়দিনের অপেক্ষায় আগ্রহ নিয়ে বসে থাকে পরিবার পরিজনসহ উদযাপন করার জন্য। দিনটি এভাবে নষ্ট করা কতটুকু হতাশার আমি তা বুঝতে পারি। তবে আমাদের অবশ্যই বিজ্ঞানভিত্তিক চিন্তা করা উচিৎ। প্রধানমন্ত্রী হিসেবে আমার কাছে আর কোনো বিকল্প নেই। এবারের বড়দিন ভিন্ন হবে কারণ আমাদের বাস্তববাদি হওয়া জরুরি। আমরা ধৈর্যের পরিচয় দিতে পারলে ভবিষ্যতের বড়দিন উদযাপন আরো মধুর হবে।


অবশেষে বরিস জনসন বৃটিশ নাগরিকদের ভ্যাকসিন গ্রহণের আহবান জানান। এ ব‍্যাপারে বলেন, “বৃটেন পৃথিবীর প্রথম রাষ্ট্র হিসেবে ভ্যাকসিন নিশ্চিত করেছে বলেও জানান তিনি। তাই যখন এনএইচএস কর্মীরা আপনাদের ফোন করবে, আপনারা ভ্যাকসিন গ্রহণ করবেন। এখন পর্যন্ত ৩ লাখ ৫০ হাজার মানুষ তাদের ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ গ্রহণ করেছে।”

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published.