ফকির আলমগীর
চলে গেলেন জনপ্রিয় সঙ্গীতশিল্পী ফকির আলমগীর (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

নিজস্ব প্রতিবেদক:

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয় শুক্রবার রাত ১০টা ৫৬ মিনিটে তার মৃত্যু হয়। এর কিছুক্ষণ পূর্বে তিনি হার্ট অ্যাটাক করেন। তখন তিনি কোভিড-১৯ ভেন্টিলেশনে ছিলেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৭১ বছর।

তাঁর জ্বর ও কাশি দেখা দিলে চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী করোনা ভাইরাস পরীক্ষা করেন। এরপর ফলাফল পজিটিভ আসলে তাকে গুলশানের একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ সাংস্কৃতিক সংগঠনের দায়িত্ব পালন করেছেন তিনি। বাংলাদেশ গণ-সংগীত সমন্বয় পরিষদের সভাপতি, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সহ-সভাপতি ছিলেন তিনি। এছাড়াও বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ সাংস্কৃতিক সংগঠনের দায়িত্ব পালন করেছেন ফকির আলমগীর।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগ থেকে স্নাতকোত্তর করেছেন ফকির আলমগীর। সঙ্গীতের ক্ষেত্রে বিশেষ অবদানের জন্য তাঁর ঝুলিতে রয়েছে রাষ্ট্রীয় ‘একুশে পদক’, ‘শেরে বাংলা পদক’, ‘ভাসানী পদক’ ও ‘বাংলা একাডেমির সম্মানসূচক ফেলোশিপ’সহ গুরুত্বপূর্ণ বহু পদক।

ফকির আলমগীর ষাটের দশক থেকে সঙ্গীত চর্চা করে আসছিলেন। গান গাওয়ার পাশাপাশি বাঁশি বাদক হিসেবেও তার বেশ খ্যাতি ছিল। তাঁর গান বাংলাদেশের সকল ঐতিহাসিক আন্দোলনে জনগণকে অনুপ্রাণিত করেছে।

ফকির আলমগীরের পরিবার তাঁর মৃত্যুর ব্যাপারে নিশ্চিত করেছেন।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published.