আমেরিকা II আর্লি-স্টার অনলাইন ডেস্ক:
সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের অনুসারীরা যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন শহরে ধ্বংসযজ্ঞ চালাচ্ছে। প্রথমে ওয়াশিংটন থেকে শুরু করে তারপর একে একে কানসাস, মিন্নেছোতা, আরকানসাস, অ্যারিজোনা, ক্যালিফোর্নিয়া, ফ্লোরিডা জর্জিয়া, নিউইয়র্ক, এবং টেক্সাসে পিস্তল হাতে রাস্তায় নেমে পড়ে তারা।

ট্রাম্পের অনুসারীদের একটাই দাবি, পুনরায় নির্বাচন। প্রথমে তারা কৃঞ্চাঙ্গ বর্ণের একজনকে রাস্তায় পেয়ে মারধর করে। পরে ক‍্যাপিটাল বিল্ডিং এ ঢুকে এলোপাতাড়ি গুলি ছুঁড়ছে। সেখানে একটি বোমা এবং একজনের মৃত‍্যুর খবর পাওয়া গেছে। আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী নীরব ভূমিকা পালন করছে।

এদিকে, জো বাইডেন তার বক্তব‍্যে বলেন, একজন নেতার উচিৎ তার অনুসারীদের ভালো কাজে উৎসাহিত করা, অথচ ট্রাম্প তার অনুসারীদের খারাপ কাজে উৎসাহিত করছেন। বাইডেন ফোন করে ট্রাম্পকে অনুরোধ জানিয়েছেন, তার অনুসারীদের থামানোর জন‍্য।

যখন কৃঞ্চাঙ্গরা রাস্তায় নেমেছিল অধিকার আদায়ের দাবিতে, ট্রাম্পের নির্দেশে তখন পুলিশ তাদের গুলি করে হত‍্যা করে। আজ এমন ভিত্তিহীন বিষয় নিয়ে ওরা এমন ধ্বংসযজ্ঞ চালাচ্ছে অথচ পুলিশ এতো নীরব কেন- এভাবেই  টুইটারে অভিমত প্রকাশ করছেন যুক্তরাষ্ট্রের সাধারণ জনগণ।

বাইডেন এর কাছে তাদের অপরাধের ভিডিও পোষ্ট করছে ট্রাম্পের অনুসারীরা। পরিস্থিতি এখনও স্বাভাবিক হচ্ছে না। সর্বশেষ খবর অনুযায়ী, টুইটার কর্তৃপক্ষ ট্রাম্পের টুইটার একাউন্ট বার ঘন্টার জন‍্য বন্ধ রাখবে বলে ঘোষণা দিয়েছে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published.