মোহাম্মদ আদনান মামুন, বার্তা সম্পাদক-
গাজীপুরের শ্রীপুরের টেপিরবাড়ী গ্রামের এএসএম কেমিক্যাল কারখানার অগ্নিকান্ডের ঘটনায় হাইড্রোজেন পার অক্সাইড প্লান্টের ধ্বংস্তুপ থেকে আরও দুইজনের মরদেহ পাওয়া গেছে। এনিয়ে কেমিক্যাল কারখানায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ০৩ জনের।

শনিবার এই দুজনের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ মেডিকেল কলেজে পাঠিয়েছে শ্রীপুর থানা পুলিশ।

আগুনে উদ্ধার হওয়া টাঙ্গাইল জেলার দেলদুয়ার থানার আওয়ালপুর গ্রামের সিরাজ বেপারীর ছেলে আশরাফুল ইসলাম (৫০) ও কুমিল্লা জেলার দাউদকান্দির থানার তুলাতুলি গ্রামের জাহাঙ্গীর আলমের ছেলে নাসির উদ্দিন (৩৯)। এর আগে ওই কারখানার শ্রমিক শ্রীপুর পৌর এলাকার উজিলাব গ্রামের তাইজ উদ্দিনের ছেলে আলমগীর হোসেনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

কারখানার সহকারী মহাব্যবস্থাপক আব্দুর রউফ বলেন, আশরাফুল মেকানিক্যাল ফিডার ও নাসির অপারেটর পদে কর্মরত ছিল। এর আগে এই কারখানা থেকে আলমগীর হোসেন নামের আরো এক শ্রমিকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছিল। অগ্নিকান্ডের পর থেকেই উভয়েই নিখোঁজ ছিলেন। এ ঘটনায় কারখানার পক্ষ থেকে নিহতের পরিবারকে দাফন কাফনের জন্য কিছু অর্থ সহায়তা দেয়া হয়েছে। পরে বিধি অনুযায়ী অন্যান্য পাওনাদি ও সহায়তা দেয়া হবে। তিনি আরো বলেন, আমাদের তালিকা অনুযায়ী আর কেউ নিখোঁজ নেই।

শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খোন্দকার ইমাম হোসেন বলেন, আগুনে নিহত কারখানা শ্রমিকদের মরদেহ দুটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুর শহীদ তাজ উদ্দিন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। কারখানা কর্তৃপক্ষের অবহেলার অভিযোগ এনে অগ্নিকান্ডে শ্রমিক মৃত্যুর ঘটনায় নিহত আলমগীরের স্ত্রী সালমা বেগম বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published.